ঢাকা , সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo পবিত্র রমজানে নিত্যপণ্যের সংকট হবে না: প্রধানমন্ত্রী Logo তামিমের ব্যাটে প্লে’ অফে বরিশাল, এলিমিনেটরে প্রতিপক্ষ চট্টগ্রাম Logo তানিশার ডিম্বাণু সংরক্ষণ, বিয়ে নিয়ে কী ভাবছেন কাজলের বোন Logo রাশিয়ার বিরুদ্ধে পাঁচ শতাধিক নতুন নিষেধাজ্ঞা Logo ইন্দোনেশিয়ার তরুণী শিবচরে, জাঁকজমকভাবে হলো প্রেমিকের সঙ্গে বিয়ে Logo সোনারগাঁয়ে অবৈধভাবে গ্যাস রিফুয়েলিং করার সময় সিলিন্ডার বিস্ফোরণে নিহত ১ Logo বন্দরে মসজিদের পাশে মাদক ও পতিতাবৃত্তির অভিযোগে গ্রামবাসীর মানববন্ধন Logo ফতুল্লায় দূরে গিয়ে সিগারেট খেতে বলায় কিশোরকে পিটিয়ে হত্যা Logo বন্দরে কিশোরী ধর্ষণের মামলায় লম্পট সেলিম গ্রেপ্তার Logo বন্দরে ৬ কেজি গাঁজাসহ নারী মাদক কারবারি গ্রেপ্তার

সেনাবাহিনীতে বড় ধরনের পরিবর্তন আনছে রাশিয়া

ইউক্রেনে চলমান যুদ্ধে বারবার বিপর্যয়ের কারণে সেনাবাহিনীতে বড় ধরনের কাঠামোগত পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাশিয়া। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ২০২৩ সাল থেকে শুরু হয়ে ২০২৬ সালের মধ্যে সেনাবাহিনীতে এসব পরিবর্তন আনা হবে। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

প্রশাসনিক সংস্কারের পাশাপাশি রাশিয়ার নৌ, মহাকাশ এবং কৌশলগত ক্ষেপণাস্ত্র বাহিনীর যুদ্ধ সক্ষমতা আরও জোরদার করার কথা জানিয়েছেন রুশ প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই শোইগু। তিনি বলেন, সশস্ত্র বাহিনীর মূল কাঠামোগত উপাদানগুলোকে শক্তিশালী করার মাধ্যমে রাষ্ট্রের সামরিক নিরাপত্তা এবং রাশিয়ার গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো রক্ষা করা সম্ভব।

পশ্চিমা দেশগুলো ইউক্রেনে ক্রমবর্ধমান অস্ত্র সরবরাহের মাধ্যমে রাশিয়ার বিরুদ্ধে যে ছায়াযুদ্ধের সূত্রপাত করেছে, সেটি এই পরিবর্তনকে আরও প্রয়োজনীয় করে তুলেছে বলে উল্লেখ করেছেন ক্রেমলিন মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ।

ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরুর পর থেকে গত ১১ মাসে সামরিক বাহিনীতে বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ পরিবর্তন এনেছে রাশিয়া। আক্রমণের শুরুতে দক্ষিণ এবং পূর্ব ইউক্রেনের বিশাল এলাকা দখল করলেও পরে বেশ কয়েকটি এলাকা ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়েছে রুশ বাহিনী। গত সপ্তাহে সামরিক বাহিনীর প্রধান জেনারেল ভ্যালেরি গেরাসিমভকে ইউক্রেনে রুশ অভিযানের কমান্ডার হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

ইউক্রেনে বড় অঞ্চল দখল ও সশস্ত্র কর্মীর সংখ্যা ১৫ লক্ষে উন্নীত করতে ব্যর্থ হওয়ায় তীব্র অভ্যন্তরীণ সমালোচনার মুখে রয়েছে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। শুক্রবারে দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী জানান, ইউক্রেনের দনেস্ক অঞ্চলের খনিজসমৃদ্ধ শহর সলেদারের পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ নিতে সক্ষম হয়েছে রুশবাহিনী।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।
জনপ্রিয় সংবাদ

পবিত্র রমজানে নিত্যপণ্যের সংকট হবে না: প্রধানমন্ত্রী

সেনাবাহিনীতে বড় ধরনের পরিবর্তন আনছে রাশিয়া

আপডেট সময় ০৪:৫০:৩৯ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২৩

ইউক্রেনে চলমান যুদ্ধে বারবার বিপর্যয়ের কারণে সেনাবাহিনীতে বড় ধরনের কাঠামোগত পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাশিয়া। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ২০২৩ সাল থেকে শুরু হয়ে ২০২৬ সালের মধ্যে সেনাবাহিনীতে এসব পরিবর্তন আনা হবে। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

প্রশাসনিক সংস্কারের পাশাপাশি রাশিয়ার নৌ, মহাকাশ এবং কৌশলগত ক্ষেপণাস্ত্র বাহিনীর যুদ্ধ সক্ষমতা আরও জোরদার করার কথা জানিয়েছেন রুশ প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই শোইগু। তিনি বলেন, সশস্ত্র বাহিনীর মূল কাঠামোগত উপাদানগুলোকে শক্তিশালী করার মাধ্যমে রাষ্ট্রের সামরিক নিরাপত্তা এবং রাশিয়ার গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো রক্ষা করা সম্ভব।

পশ্চিমা দেশগুলো ইউক্রেনে ক্রমবর্ধমান অস্ত্র সরবরাহের মাধ্যমে রাশিয়ার বিরুদ্ধে যে ছায়াযুদ্ধের সূত্রপাত করেছে, সেটি এই পরিবর্তনকে আরও প্রয়োজনীয় করে তুলেছে বলে উল্লেখ করেছেন ক্রেমলিন মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ।

ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরুর পর থেকে গত ১১ মাসে সামরিক বাহিনীতে বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ পরিবর্তন এনেছে রাশিয়া। আক্রমণের শুরুতে দক্ষিণ এবং পূর্ব ইউক্রেনের বিশাল এলাকা দখল করলেও পরে বেশ কয়েকটি এলাকা ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়েছে রুশ বাহিনী। গত সপ্তাহে সামরিক বাহিনীর প্রধান জেনারেল ভ্যালেরি গেরাসিমভকে ইউক্রেনে রুশ অভিযানের কমান্ডার হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

ইউক্রেনে বড় অঞ্চল দখল ও সশস্ত্র কর্মীর সংখ্যা ১৫ লক্ষে উন্নীত করতে ব্যর্থ হওয়ায় তীব্র অভ্যন্তরীণ সমালোচনার মুখে রয়েছে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। শুক্রবারে দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী জানান, ইউক্রেনের দনেস্ক অঞ্চলের খনিজসমৃদ্ধ শহর সলেদারের পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ নিতে সক্ষম হয়েছে রুশবাহিনী।