ঢাকা , শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ৬ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রাহুল গান্ধীর দুই বছরের কারাদণ্ড

ভারতের প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেসের নেতা রাহুল গান্ধীকে দুই বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন গুজরাটের একটি আদালত। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ‘নাম’ নিয়ে কটূক্তি করায় তাকে এ দণ্ড দেওয়া হয়েছে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি বৃহস্পতিবার (২৩ মার্চ) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।
এনডিটিভি জানিয়েছে, ২০১৯ সালে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নামের শেষ অংশ নিয়ে বাজে মন্তব্য করেন রাহুল। এরপর তার বিরুদ্ধে গুজরাটের সুরাটে মানহানির মামলা করেন বিজেপি নেতা ও গুজরাটের সাবেক মন্ত্রী পুনেশ মোদি।
২০১৯ সালে কর্ণাটকে লোকসভা নির্বাচনের একটি র‌্যালিতে মোদিকে নিয়ে ওই কটূক্তি করেছিলেন রাহুল। তিনি বলেছিলেন, ‘কীভাবে সব চোরের নাম মোদি হয়?’
মূলত ভারতের পলাতক আসামী নিরব মোদি এবং ললিত মোদির কথার প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ইঙ্গিত করেছিলেন তিনি।
তবে রাহুল গান্ধীর বিরুদ্ধে দেওয়া এ কারাদণ্ড আবার ৩০ দিনের জন্য স্থগিত করা হয়েছে। জেলে যাওয়ার আগে যেন দণ্ডের বিরুদ্ধে আপিল করতে পারেন তাই রায় সাময়িক সময়ের জন্য স্থগিত করেন আদালত।
বৃহস্পতিবার রায় দেওয়ার আগে গুজরাটের সুরাট আদালতে উপস্থিত হন রাহুল। সেখানে তাকে বরণ করে নেন কংগ্রেসের নেতারা। এছাড়া রাস্তার বিভিন্ন জায়গায় কংগ্রেসের নেতাকর্মীরা অবস্থান নেন।
এদিকে জুডিশিয়াল মেজিস্ট্রেট আদালতের প্রধান বিচারপতি এইচএইচ ভার্মা গত সপ্তাহে বলেছিলেন, দুই পক্ষের কাছ থেকেই তিনি সবকিছু শুনেছেন এবং একটি সিদ্ধান্তে উপনীতি হয়েছেন। এরপর তিনি জানান আগামী সপ্তাহে চার বছর পুরোনো মামলার রায় দেবেন।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।

রাহুল গান্ধীর দুই বছরের কারাদণ্ড

আপডেট সময় ০৩:১৭:৩১ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মার্চ ২০২৩

ভারতের প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেসের নেতা রাহুল গান্ধীকে দুই বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন গুজরাটের একটি আদালত। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ‘নাম’ নিয়ে কটূক্তি করায় তাকে এ দণ্ড দেওয়া হয়েছে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি বৃহস্পতিবার (২৩ মার্চ) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।
এনডিটিভি জানিয়েছে, ২০১৯ সালে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নামের শেষ অংশ নিয়ে বাজে মন্তব্য করেন রাহুল। এরপর তার বিরুদ্ধে গুজরাটের সুরাটে মানহানির মামলা করেন বিজেপি নেতা ও গুজরাটের সাবেক মন্ত্রী পুনেশ মোদি।
২০১৯ সালে কর্ণাটকে লোকসভা নির্বাচনের একটি র‌্যালিতে মোদিকে নিয়ে ওই কটূক্তি করেছিলেন রাহুল। তিনি বলেছিলেন, ‘কীভাবে সব চোরের নাম মোদি হয়?’
মূলত ভারতের পলাতক আসামী নিরব মোদি এবং ললিত মোদির কথার প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ইঙ্গিত করেছিলেন তিনি।
তবে রাহুল গান্ধীর বিরুদ্ধে দেওয়া এ কারাদণ্ড আবার ৩০ দিনের জন্য স্থগিত করা হয়েছে। জেলে যাওয়ার আগে যেন দণ্ডের বিরুদ্ধে আপিল করতে পারেন তাই রায় সাময়িক সময়ের জন্য স্থগিত করেন আদালত।
বৃহস্পতিবার রায় দেওয়ার আগে গুজরাটের সুরাট আদালতে উপস্থিত হন রাহুল। সেখানে তাকে বরণ করে নেন কংগ্রেসের নেতারা। এছাড়া রাস্তার বিভিন্ন জায়গায় কংগ্রেসের নেতাকর্মীরা অবস্থান নেন।
এদিকে জুডিশিয়াল মেজিস্ট্রেট আদালতের প্রধান বিচারপতি এইচএইচ ভার্মা গত সপ্তাহে বলেছিলেন, দুই পক্ষের কাছ থেকেই তিনি সবকিছু শুনেছেন এবং একটি সিদ্ধান্তে উপনীতি হয়েছেন। এরপর তিনি জানান আগামী সপ্তাহে চার বছর পুরোনো মামলার রায় দেবেন।