ঢাকা , সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo সরকার তারেককে ফিরিয়ে এনে অবশ্যই আদালতের রায় কার্যকর করবে : প্রধানমন্ত্রী Logo ফিলিস্তিনকে রাষ্ট্রের স্বীকৃতির প্রভাব কী হতে পারে? Logo মায়ের ওড়না শাড়ি বানিয়ে পরলেন জেফার, দেখালেন চমক Logo পরিবারসহ বেনজীরের আরও ১১৩ স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি ক্রোকের নির্দেশ Logo হায়দরাবাদকে গুঁড়িয়ে, উড়িয়ে কলকাতা চ্যাম্পিয়ন Logo ফতুল্লায় রহিম হাজী ও সামেদ আলীর গ্রুপে সংঘর্ষ, ভাংচুর, আহত ১৫ Logo সোনারগাঁয়ে নির্বাচন পরবর্তী প্রতিহিংসায় শতাধিক ফলজ গাছ কর্তন Logo মুছাপুরে স্বর্ণকার অজিতের প্রেমের ফাঁদে সর্বশান্ত প্রবাসী নারী Logo বন্দরে বিভিন্ন মামলার ২ সাঁজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেপ্তার Logo নাসিকের ময়লার গাড়ির ধাক্কায় অন্ত:সত্তা নারীর মৃত্যু, চালক আটক

যুক্তরাজ্য প্রবাসীর সঙ্গে দুই তরুণীর প্রতারণা, সিলেটে পরোয়ানা

হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ উপজেলার দুই তরুণীর বিরুদ্ধে যুক্তরাজ্য প্রবাসীর টাকা আত্মসাৎ ও প্রতারণার অভিযোগ উঠেছে। এ অভিযোগে দায়েরকৃত মামলায় বুধবার সিলেটের অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালত তাদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন।

দুই তরুণী হচ্ছেন- নবীগঞ্জ উপজেলার উমরপুরের শাহ রাজা মিয়ার কন্যা শাহ নাদিয়া বেগম ও শাহ সাদিয়া বেগম।

অভিযোগে প্রকাশ, সিলেট নগরীর রায়নগর সোনারপাড়াস্থ (রাসোস-২০) লন্ডন প্রবাসী সাউল মিয়া ওরফে সাবুল মিয়ার বাসায় ভাড়াটিয়া হিসেবে নাদিয়া ও সাদিয়া ২০২০ সালের মার্চে উঠেন। আত্মীয়তার সুবাদে তাদের ২য় তলায় নিজস্ব ব্যবহৃত অংশ বিনা ভাড়ায় থাকতে দেওয়া হয়। তবে শর্ত দেওয়া হয়, ভাড়াটিয়াদের কাছ থেকে ভাড়া আদায় করে প্রবাসীর ব্যাংক অ্যাকাউন্টে জমা দিতে হবে। ভাড়া আদায়ের পাশাপাশি তাদের কাছে বাসার কাজের জন্যে লন্ডন থেকে টাকাও পাঠানো হয়। দুই বছর অবস্থানের পর তারা কাউকে না বলে বাসার মালামাল নিয়ে পালিয়ে যান।

এ ঘটনায় নাদিয়া-সাদিয়াকে আসামিকে করে অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে প্রবাসীর কেয়ারটেকার কবির হোসেন বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন। কোতোয়ালি থানার এসআই মো. আজিজুল হক তদন্ত শেষে গত ১৩ ডিসেম্বর আদালতে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেন।

এতে বলা হয়, শাহ নাদিয়া বেগম ও শাহ সাদিয়া বেগম প্রবাসীর কাছ থেকে নগদ ৫ লাখ ১৮ হাজার ৩৫০ টাকাসহ বাসা ভাড়ার টাকা আত্মসাৎ করে বিভিন্ন মালামাল চুরির অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রতীয়মান হয়েছে।

মামলার তদন্ত চলাকালে গত ২০ নভেম্বর দুই তরুণী ওসমানী বিমানবন্দর দিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে ইমিগ্রেশন পুলিশের বাধায় ফিরে আসেন।

বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট মো. জালাল আহমদ মামলাসহ পুরো ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, তাদের বিরুদ্ধে আদালতে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন।

এ ব্যাপারে জানতে চেয়ে শাহ নাদিয়া বেগমের মোবাইলে কল দেওয়া হলে বন্ধ পাওয়া গেছে।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।
জনপ্রিয় সংবাদ

সরকার তারেককে ফিরিয়ে এনে অবশ্যই আদালতের রায় কার্যকর করবে : প্রধানমন্ত্রী

যুক্তরাজ্য প্রবাসীর সঙ্গে দুই তরুণীর প্রতারণা, সিলেটে পরোয়ানা

আপডেট সময় ০৪:২৪:৩০ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ উপজেলার দুই তরুণীর বিরুদ্ধে যুক্তরাজ্য প্রবাসীর টাকা আত্মসাৎ ও প্রতারণার অভিযোগ উঠেছে। এ অভিযোগে দায়েরকৃত মামলায় বুধবার সিলেটের অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালত তাদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন।

দুই তরুণী হচ্ছেন- নবীগঞ্জ উপজেলার উমরপুরের শাহ রাজা মিয়ার কন্যা শাহ নাদিয়া বেগম ও শাহ সাদিয়া বেগম।

অভিযোগে প্রকাশ, সিলেট নগরীর রায়নগর সোনারপাড়াস্থ (রাসোস-২০) লন্ডন প্রবাসী সাউল মিয়া ওরফে সাবুল মিয়ার বাসায় ভাড়াটিয়া হিসেবে নাদিয়া ও সাদিয়া ২০২০ সালের মার্চে উঠেন। আত্মীয়তার সুবাদে তাদের ২য় তলায় নিজস্ব ব্যবহৃত অংশ বিনা ভাড়ায় থাকতে দেওয়া হয়। তবে শর্ত দেওয়া হয়, ভাড়াটিয়াদের কাছ থেকে ভাড়া আদায় করে প্রবাসীর ব্যাংক অ্যাকাউন্টে জমা দিতে হবে। ভাড়া আদায়ের পাশাপাশি তাদের কাছে বাসার কাজের জন্যে লন্ডন থেকে টাকাও পাঠানো হয়। দুই বছর অবস্থানের পর তারা কাউকে না বলে বাসার মালামাল নিয়ে পালিয়ে যান।

এ ঘটনায় নাদিয়া-সাদিয়াকে আসামিকে করে অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে প্রবাসীর কেয়ারটেকার কবির হোসেন বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন। কোতোয়ালি থানার এসআই মো. আজিজুল হক তদন্ত শেষে গত ১৩ ডিসেম্বর আদালতে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেন।

এতে বলা হয়, শাহ নাদিয়া বেগম ও শাহ সাদিয়া বেগম প্রবাসীর কাছ থেকে নগদ ৫ লাখ ১৮ হাজার ৩৫০ টাকাসহ বাসা ভাড়ার টাকা আত্মসাৎ করে বিভিন্ন মালামাল চুরির অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রতীয়মান হয়েছে।

মামলার তদন্ত চলাকালে গত ২০ নভেম্বর দুই তরুণী ওসমানী বিমানবন্দর দিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে ইমিগ্রেশন পুলিশের বাধায় ফিরে আসেন।

বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট মো. জালাল আহমদ মামলাসহ পুরো ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, তাদের বিরুদ্ধে আদালতে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন।

এ ব্যাপারে জানতে চেয়ে শাহ নাদিয়া বেগমের মোবাইলে কল দেওয়া হলে বন্ধ পাওয়া গেছে।