ঢাকা , শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ৬ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মেট্রোরেলের প্রথম চালক কে এই আফিজা?

মেট্রোরেল বাংলাদেশেল জন্য এখন আর স্বপ্ন নয়, বাস্তব। আজই উদ্বোধন হয়ে গেল মেট্রোরেলের। উদ্বোধনের পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছোট বোন শেখ রেহানাসহ সঙ্গীদের নিয়ে মেট্রোরেলে চড়েন। তারা ১০ মিনিট ১০ সেকেন্ডে রাজধানীর দিয়াবাড়ি থেকে আগারগাঁওয়ে গিয়ে পৌছান।
দেশের ইতিহাসের প্রথম এই মেট্রোরেলের চালক একজন নারী। মরিয়ম আফিজা আজ প্রধানমন্ত্রীসহ মেট্রোরেলের যাত্রীদের প্রথম বহর নিয়ে আগারগাঁওয়ে যান। এ কারণে এই দিনটি আফিজার জন্যও স্মরণীয় হয়ে থাকবে। জানা গেছে, মেট্রোরেলের প্রথম চালক মরিয়ম আফিজা ল²ীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার করপাড়া ইউনিয়নের বাসিন্দা।
তিনি পড়ালেখা করেছেন নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি) থেকে। ক্যামিস্ট্রি অ্যান্ড কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেন তিনি।
ডিএমটিসিএল সূত্রে জানায়, ২০২১ সালের ২ নভেম্বর ডিএমটিসিএল এ নিয়োগ পাওয়া এই নারী চালক দক্ষ চালক হিসেবে নিজেকে তৈরি করার জন্য প্রশিক্ষণ নিয়েছেন টানা এক বছর। এ ছাড়া চট্টগ্রামের হালিশহরে অবস্থিত রেলওয়ে ট্রেনিং অ্যাকাডেমি থেকে দুই মাস প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। পরে ঢাকায় ফিরে আরও চার মাস প্রশিক্ষণ নেন।
মরিয়ম আফিজা নিজেকে তৈরি করার জন্য পর্যাপ্ত প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। তিনি বর্তমানে উত্তরা দিয়াবাড়ি মেট্রোরেলের বিপরীতে কারিগরি প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন। সেখানে মেট্রোরেলের নির্মাতা প্রতিষ্ঠান জাপানের মিতসুবিশি কাওয়াসাকি কোম্পানি বিশেষজ্ঞরা ট্রেন পরিচালনা এবং কারিগরি ও প্রায়োগিক প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন।
মেট্রোরেলের প্রথম চালক হতে পেরে উচ্ছ¡সিত মরিয়ম আফিজা জানান, ২০২১ সালের ২ নভেম্বরে আমি রেলে নিয়োগ পাই। এরপর থেকে স্বপ্ন বুনছি, সেই মাহেন্দ্রক্ষণের। মেট্রোরেল বাংলাদেশে প্রথম। তাই আগ্রহ থেকেই এই চাকরির আবেদন করেছিলাম।
তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশের জন্য মেট্রোরেল যেমন স্বপ্নের মতো ঠিক তেমনি মেট্রোরেল আমার কাছেও একটা স্বপ্ন।
আফিজার বিষয়ে ম্যাস ট্রানজিট লিমিটেডের (ডিএমটিসিএল) ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) এমএএন সিদ্দিক বলেন, আফিজা একজন দক্ষ চালক হিসেবে গড়ে উঠতে এক বছরব্যাপী দীর্ঘ প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। এছাড়া তিনি চট্টগ্রামের হালিশহরে অবস্থিত বাংলাদেশ রেলওয়ে ট্রেনিং একাডেমি থেকে দুই মাসের আরেকটি প্রশিক্ষণ নিয়েছেন।
আজ প্রধানমন্ত্রী মেট্রোরেলে বহজন করে আগারগাঁও স্টেশনে পৌঁছে মরিয়ম আফিজা গণমাধ্যমকে বলেন, প্রধানমন্ত্রী আমাদের সঙ্গে যাত্রা করেছেন। এটি গর্বের বিষয়। ঢাকায় যানজটে কী পরিমাণ ভোগান্তি হয় এটি আমাদের সবার জানা। মেট্রোরেল চালুর ফলে যানজটের অভিশাপ থেকে আমরা মুক্তি পাব।
তিনি বলেন, মেট্রোরেল রেডিও টেকনোলজির মাধ্যমে চলে। এটি সম্পূর্ণ ডিজিটাল প্রযুক্তি। এটি সম্পূর্ণ পরিবেশবান্ধব ও নিরাপদ।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।

মেট্রোরেলের প্রথম চালক কে এই আফিজা?

আপডেট সময় ০৪:১৯:২৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ ডিসেম্বর ২০২২

মেট্রোরেল বাংলাদেশেল জন্য এখন আর স্বপ্ন নয়, বাস্তব। আজই উদ্বোধন হয়ে গেল মেট্রোরেলের। উদ্বোধনের পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছোট বোন শেখ রেহানাসহ সঙ্গীদের নিয়ে মেট্রোরেলে চড়েন। তারা ১০ মিনিট ১০ সেকেন্ডে রাজধানীর দিয়াবাড়ি থেকে আগারগাঁওয়ে গিয়ে পৌছান।
দেশের ইতিহাসের প্রথম এই মেট্রোরেলের চালক একজন নারী। মরিয়ম আফিজা আজ প্রধানমন্ত্রীসহ মেট্রোরেলের যাত্রীদের প্রথম বহর নিয়ে আগারগাঁওয়ে যান। এ কারণে এই দিনটি আফিজার জন্যও স্মরণীয় হয়ে থাকবে। জানা গেছে, মেট্রোরেলের প্রথম চালক মরিয়ম আফিজা ল²ীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার করপাড়া ইউনিয়নের বাসিন্দা।
তিনি পড়ালেখা করেছেন নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি) থেকে। ক্যামিস্ট্রি অ্যান্ড কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেন তিনি।
ডিএমটিসিএল সূত্রে জানায়, ২০২১ সালের ২ নভেম্বর ডিএমটিসিএল এ নিয়োগ পাওয়া এই নারী চালক দক্ষ চালক হিসেবে নিজেকে তৈরি করার জন্য প্রশিক্ষণ নিয়েছেন টানা এক বছর। এ ছাড়া চট্টগ্রামের হালিশহরে অবস্থিত রেলওয়ে ট্রেনিং অ্যাকাডেমি থেকে দুই মাস প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। পরে ঢাকায় ফিরে আরও চার মাস প্রশিক্ষণ নেন।
মরিয়ম আফিজা নিজেকে তৈরি করার জন্য পর্যাপ্ত প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। তিনি বর্তমানে উত্তরা দিয়াবাড়ি মেট্রোরেলের বিপরীতে কারিগরি প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন। সেখানে মেট্রোরেলের নির্মাতা প্রতিষ্ঠান জাপানের মিতসুবিশি কাওয়াসাকি কোম্পানি বিশেষজ্ঞরা ট্রেন পরিচালনা এবং কারিগরি ও প্রায়োগিক প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন।
মেট্রোরেলের প্রথম চালক হতে পেরে উচ্ছ¡সিত মরিয়ম আফিজা জানান, ২০২১ সালের ২ নভেম্বরে আমি রেলে নিয়োগ পাই। এরপর থেকে স্বপ্ন বুনছি, সেই মাহেন্দ্রক্ষণের। মেট্রোরেল বাংলাদেশে প্রথম। তাই আগ্রহ থেকেই এই চাকরির আবেদন করেছিলাম।
তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশের জন্য মেট্রোরেল যেমন স্বপ্নের মতো ঠিক তেমনি মেট্রোরেল আমার কাছেও একটা স্বপ্ন।
আফিজার বিষয়ে ম্যাস ট্রানজিট লিমিটেডের (ডিএমটিসিএল) ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) এমএএন সিদ্দিক বলেন, আফিজা একজন দক্ষ চালক হিসেবে গড়ে উঠতে এক বছরব্যাপী দীর্ঘ প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। এছাড়া তিনি চট্টগ্রামের হালিশহরে অবস্থিত বাংলাদেশ রেলওয়ে ট্রেনিং একাডেমি থেকে দুই মাসের আরেকটি প্রশিক্ষণ নিয়েছেন।
আজ প্রধানমন্ত্রী মেট্রোরেলে বহজন করে আগারগাঁও স্টেশনে পৌঁছে মরিয়ম আফিজা গণমাধ্যমকে বলেন, প্রধানমন্ত্রী আমাদের সঙ্গে যাত্রা করেছেন। এটি গর্বের বিষয়। ঢাকায় যানজটে কী পরিমাণ ভোগান্তি হয় এটি আমাদের সবার জানা। মেট্রোরেল চালুর ফলে যানজটের অভিশাপ থেকে আমরা মুক্তি পাব।
তিনি বলেন, মেট্রোরেল রেডিও টেকনোলজির মাধ্যমে চলে। এটি সম্পূর্ণ ডিজিটাল প্রযুক্তি। এটি সম্পূর্ণ পরিবেশবান্ধব ও নিরাপদ।