ঢাকা , মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিপদের মধ্যেই জনপ্রিয়তা বেড়েছে ট্রাম্পের, দাবি সমীক্ষায়

গত মঙ্গলবার গ্রেপ্তার হতে হয়েছে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে। যদিও গ্রেপ্তারির কিছুক্ষণ পরে তিনি ছাড়া পেয়ে গিয়েছেন। কিন্তু ৩৪টি অভিযোগে অভিযুক্ত ট্রাম্পের ভবিষ্যৎ কী হতে চলেছে তা নিয়ে জল্পনা অব্যাহত ওয়াকিবহাল মহলে।

এরই মধ্যে রয়টার্স ও আইপিএসওএসের একটি সমীক্ষায় উঠে এসেছে অন্য একটি দিক। সেই সমীক্ষা বলছে, এ পরিস্থিতিতে আগামী বছর প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান প্রার্থী হিসেবে ট্রাম্পের সম্ভাবনার উন্নতি হয়েছে। পাশাপাশি জানা যাচ্ছে, ট্রাম্পের এই মামলাকে ঘিরে দ্বিধাবিভক্ত সাধারণ মার্কিন নাগরিকরা।

মোট ১০০৪ জনের উপরে এই সমীক্ষা চালানো হয়েছিল গত বুধ ও বৃহস্পতিবার। কী বলছে সমীক্ষা? জানা গিয়েছে, সমীক্ষা অনুযায়ী, ৪৯ শতাংশ মার্কিন নাগরিক মনে করেন ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিযোগ এনে ক্রিমিনাল কেস রুজু করে সঠিক পদক্ষেপই করা হয়েছে। দেখা গিয়েছে স্বঘোষিত ডেমোক্র্যাট সমর্থকদের ৮৪ শতাংশই মনে করেন ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে ঠিকই করা হয়েছে। স্বাভাবিক ভাবেই রিপাবলিকান সমর্থকদের ক্ষেত্রে যা মাত্র ১৬ শতাংশ, যেহেতু ট্রাম্প রিপাবলিকান নেতা।

রিপাবলিকান সমর্থকদের মধ্যে ৪০ শতাংশ জানিয়েছেন, তাদের নেতাকে অভিযুক্ত করার পর তাদের তাকে ভোট দেয়ার ইচ্ছে আরও বেড়ে গিয়েছে। ৩৮ শতাংশ জানাচ্ছেন এই ঘটনায় তাদের সিদ্ধান্তে কোনও প্রভাব পড়বে না। মাত্র ১২ শতাংশ অবশ্য এই গ্রেপ্তারির পর ট্রাম্পকে ফের মসনদে ফিরিয়ে আনতে নারাজ। এদিকে আগামী বছরের নির্বাচনে রিপাবলিকানদের মধ্যে নমিমেশন হিসেবে ট্রাম্পই সকলের আগে। দলীয় কর্মীদের ৫৮ শতাংশই তাকে চান।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।

বিপদের মধ্যেই জনপ্রিয়তা বেড়েছে ট্রাম্পের, দাবি সমীক্ষায়

আপডেট সময় ০৪:২৬:০৩ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৯ এপ্রিল ২০২৩

গত মঙ্গলবার গ্রেপ্তার হতে হয়েছে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে। যদিও গ্রেপ্তারির কিছুক্ষণ পরে তিনি ছাড়া পেয়ে গিয়েছেন। কিন্তু ৩৪টি অভিযোগে অভিযুক্ত ট্রাম্পের ভবিষ্যৎ কী হতে চলেছে তা নিয়ে জল্পনা অব্যাহত ওয়াকিবহাল মহলে।

এরই মধ্যে রয়টার্স ও আইপিএসওএসের একটি সমীক্ষায় উঠে এসেছে অন্য একটি দিক। সেই সমীক্ষা বলছে, এ পরিস্থিতিতে আগামী বছর প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান প্রার্থী হিসেবে ট্রাম্পের সম্ভাবনার উন্নতি হয়েছে। পাশাপাশি জানা যাচ্ছে, ট্রাম্পের এই মামলাকে ঘিরে দ্বিধাবিভক্ত সাধারণ মার্কিন নাগরিকরা।

মোট ১০০৪ জনের উপরে এই সমীক্ষা চালানো হয়েছিল গত বুধ ও বৃহস্পতিবার। কী বলছে সমীক্ষা? জানা গিয়েছে, সমীক্ষা অনুযায়ী, ৪৯ শতাংশ মার্কিন নাগরিক মনে করেন ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিযোগ এনে ক্রিমিনাল কেস রুজু করে সঠিক পদক্ষেপই করা হয়েছে। দেখা গিয়েছে স্বঘোষিত ডেমোক্র্যাট সমর্থকদের ৮৪ শতাংশই মনে করেন ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে ঠিকই করা হয়েছে। স্বাভাবিক ভাবেই রিপাবলিকান সমর্থকদের ক্ষেত্রে যা মাত্র ১৬ শতাংশ, যেহেতু ট্রাম্প রিপাবলিকান নেতা।

রিপাবলিকান সমর্থকদের মধ্যে ৪০ শতাংশ জানিয়েছেন, তাদের নেতাকে অভিযুক্ত করার পর তাদের তাকে ভোট দেয়ার ইচ্ছে আরও বেড়ে গিয়েছে। ৩৮ শতাংশ জানাচ্ছেন এই ঘটনায় তাদের সিদ্ধান্তে কোনও প্রভাব পড়বে না। মাত্র ১২ শতাংশ অবশ্য এই গ্রেপ্তারির পর ট্রাম্পকে ফের মসনদে ফিরিয়ে আনতে নারাজ। এদিকে আগামী বছরের নির্বাচনে রিপাবলিকানদের মধ্যে নমিমেশন হিসেবে ট্রাম্পই সকলের আগে। দলীয় কর্মীদের ৫৮ শতাংশই তাকে চান।