ঢাকা , মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪, ২১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo বন্দরে শ্লীলতাহানির ভিডিও ধারণ করে যুবতীকে ধর্ষণ, প্রধান আসামি গ্রেপ্তার Logo আড়াইহাজারে রেস্টুরেন্ট থেকে অপত্তিকর অবস্থায় ১৬ কিশোর কিশোরী আটক Logo সোনারগাঁয়ে ট্রাক চাপায় যুবক নিহত, চালক আটক Logo সোনারগাঁয়ের আলোচিত সাধন মিয়া হত্যা মামলায় দুইজনের মৃত্যুদন্ড ও একজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড Logo বন্দর ১নং খেয়াঘাট মাঝি সমিতির নির্বাচন সম্পন্ন Logo আসন্ন উপজেলা নির্বাচনে মাকসুদ চেয়ারম্যান’র মত বিনিময় সভা ও উঠান বৈঠক Logo না’গঞ্জ জেলা জা’পা সভাপতি সানুর নাম ভাঙ্গিয়ে সুমন প্রধানের অপকর্ম রুখবে কে? Logo হুথিদের হামলায় লোহিত সাগরে ডুবে গেল সেই জাহাজ Logo রাতের লাইভের নেপথ্যের কারণ জানালেন তাহসান-ফারিণ Logo যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় সশস্ত্র বাহিনীকে সক্ষম করে তোলা হচ্ছে : প্রধানমন্ত্রী

বাজেটে মানুষের কষ্ট আরও বাড়বে: বিএনপি

নতুন অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট সাধারণ মানুষের ‘কষ্ট আরও বাড়াবে’ বলে দাবি করেছে বিএনপি। দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, ‘এই বাজেট হচ্ছে প্যাট্রন ক্লাইন্ট রিলেশনশিপ অর্থাৎ পৃষ্ঠপোষকতার অর্থনীতি, রেনসিংকি অর্থাৎ ভাড়া দিতে হবে, চাঁদা দিতে হবে, কমিশন দিতে হবে… এর মাধ্যমে অর্থনীতি চলতে হবে। অ্যাসট্রাকটিভ ইনস্টিটিউশন মানে রাষ্ট্রের প্রতিষ্ঠানগুলোকে লুটপাটের জন্য সংগঠিতভাবে তৈরি করে দিয়েছে, এরাও লুটপাটের অংশীদার হয়ে গেছে।’

বৃহস্পতিবার (১ জুন) বনানীতে নিজের বাসায় সাংবাদিকদের সামনে বাজেট প্রতিক্রিয়ায় এসব কথা বলেন আমির খসরু। এ সময় সংবাদ সম্মেলনের ভেতরে গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যদের উপস্থিতি দেখে ক্ষুব্ধ হন সাবেক এই বাণিজ্যমন্ত্রী। তিনি তাদেরকে বাইরে যেতে বলেন।

বাজেট প্রতিক্রিয়ার শুরুতে বিষয়টি উল্লেখ করে আমির খসরু বলেন, ‘আমি দুঃখের সাথে বলতে চাই, বাজেট প্রতিক্রিয়া জানার জন্য আমার বাসায় আপনারা এসেছেন। এখানে গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরা বাসায় ঢোকে… তাদের কাজটা কী? এখানে গোয়েন্দা বাহিনীর সদস্যরা ঢুকে কী প্রমাণ করতে চাচ্ছেন? তার মানে কী আমরা বাজেটের কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে পারবো না।’

তিনি অভিযোগ করেন, ‘তাদের উপস্থিতি দেখে এটাই প্রমাণ হয় যে, বাজেট প্রতিক্রিয়া দিতে সাবধান হতে হবে কিংবা প্রতিক্রিয়া দেওয়ার সুযোগও নাই। আজকে এই ধরনের একটা অনুভুতি আমার মনে এসেছে। তাহলে তারা এরকম একটা সরকার দেশের জন্য, জনগণের জন্য কী বাজেট দেবে সেটা তো বোঝাই যাচ্ছে। সেখানে জনগণ তথা বিরোধী দলের প্রতিক্রিয়া শুনতে তারা রাজি নয়। তাহলে এই ধরনের সরকার জনগণের জন্য কী বাজেট দেবে? এর ফলে বাংলাদেশের জনগণের কষ্ট বাড়ছে, এই বাজেটে আরও বাড়বে।’

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বৃহস্পতিবার (১ জুন) জাতীয় সংসদে ২০২৩-২৪ অর্থবছরের জন্য ৭ লাখ ৬১ হাজার ৭৮৫ কোটি টাকার বাজেট প্রস্তাব করেছেন, যা ‘জনবান্ধব ও উন্নয়নমুখী’ বলে অভিহিত করেছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ।

বাজেটের ঋণ নির্ভরতা প্রসঙ্গ টেনে আমির খসরু বলেন, ‘ঋণ তারা (সরকার) দেশের থেকে, দেশের বাইরে থেকে নিচ্ছে। এই ৭ বছরে দেশের বাইরে ৫২% ঋণ বেড়েছে। আপনি যদি ঋণ চিত্র দেখেন আজকে… তারা দেশের ভেতরে ব্যাংকগুলো থেকে, বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে, দেশের বাইরে থেকে যে ঋণ নিচ্ছে এই ঋণের দায় তো আগামী প্রজন্মকে দিতে হবে।’

প্রস্তাবিত বাজেট বাস্তবায়নযোগ্য কিনা প্রশ্ন করা হলে সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এই বাজেট সরকার দিচ্ছে না আইএমএফ দিচ্ছে সেটাও তো দেখার বিষয়। আইএমএফ যে গাইড লাইনগুলো দিচ্ছে তারা তো সুনিশ্চিতভাবে বলেছে, কি কি করতে হবে এবং বাংলাদেশের অর্থনীতি কি কারণে আজকে নিম্ন পর্যায় এসে নেমেছে।’

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।
জনপ্রিয় সংবাদ

বন্দরে শ্লীলতাহানির ভিডিও ধারণ করে যুবতীকে ধর্ষণ, প্রধান আসামি গ্রেপ্তার

বাজেটে মানুষের কষ্ট আরও বাড়বে: বিএনপি

আপডেট সময় ০৪:৩৫:২৫ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২ জুন ২০২৩

নতুন অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট সাধারণ মানুষের ‘কষ্ট আরও বাড়াবে’ বলে দাবি করেছে বিএনপি। দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, ‘এই বাজেট হচ্ছে প্যাট্রন ক্লাইন্ট রিলেশনশিপ অর্থাৎ পৃষ্ঠপোষকতার অর্থনীতি, রেনসিংকি অর্থাৎ ভাড়া দিতে হবে, চাঁদা দিতে হবে, কমিশন দিতে হবে… এর মাধ্যমে অর্থনীতি চলতে হবে। অ্যাসট্রাকটিভ ইনস্টিটিউশন মানে রাষ্ট্রের প্রতিষ্ঠানগুলোকে লুটপাটের জন্য সংগঠিতভাবে তৈরি করে দিয়েছে, এরাও লুটপাটের অংশীদার হয়ে গেছে।’

বৃহস্পতিবার (১ জুন) বনানীতে নিজের বাসায় সাংবাদিকদের সামনে বাজেট প্রতিক্রিয়ায় এসব কথা বলেন আমির খসরু। এ সময় সংবাদ সম্মেলনের ভেতরে গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যদের উপস্থিতি দেখে ক্ষুব্ধ হন সাবেক এই বাণিজ্যমন্ত্রী। তিনি তাদেরকে বাইরে যেতে বলেন।

বাজেট প্রতিক্রিয়ার শুরুতে বিষয়টি উল্লেখ করে আমির খসরু বলেন, ‘আমি দুঃখের সাথে বলতে চাই, বাজেট প্রতিক্রিয়া জানার জন্য আমার বাসায় আপনারা এসেছেন। এখানে গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরা বাসায় ঢোকে… তাদের কাজটা কী? এখানে গোয়েন্দা বাহিনীর সদস্যরা ঢুকে কী প্রমাণ করতে চাচ্ছেন? তার মানে কী আমরা বাজেটের কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে পারবো না।’

তিনি অভিযোগ করেন, ‘তাদের উপস্থিতি দেখে এটাই প্রমাণ হয় যে, বাজেট প্রতিক্রিয়া দিতে সাবধান হতে হবে কিংবা প্রতিক্রিয়া দেওয়ার সুযোগও নাই। আজকে এই ধরনের একটা অনুভুতি আমার মনে এসেছে। তাহলে তারা এরকম একটা সরকার দেশের জন্য, জনগণের জন্য কী বাজেট দেবে সেটা তো বোঝাই যাচ্ছে। সেখানে জনগণ তথা বিরোধী দলের প্রতিক্রিয়া শুনতে তারা রাজি নয়। তাহলে এই ধরনের সরকার জনগণের জন্য কী বাজেট দেবে? এর ফলে বাংলাদেশের জনগণের কষ্ট বাড়ছে, এই বাজেটে আরও বাড়বে।’

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বৃহস্পতিবার (১ জুন) জাতীয় সংসদে ২০২৩-২৪ অর্থবছরের জন্য ৭ লাখ ৬১ হাজার ৭৮৫ কোটি টাকার বাজেট প্রস্তাব করেছেন, যা ‘জনবান্ধব ও উন্নয়নমুখী’ বলে অভিহিত করেছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ।

বাজেটের ঋণ নির্ভরতা প্রসঙ্গ টেনে আমির খসরু বলেন, ‘ঋণ তারা (সরকার) দেশের থেকে, দেশের বাইরে থেকে নিচ্ছে। এই ৭ বছরে দেশের বাইরে ৫২% ঋণ বেড়েছে। আপনি যদি ঋণ চিত্র দেখেন আজকে… তারা দেশের ভেতরে ব্যাংকগুলো থেকে, বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে, দেশের বাইরে থেকে যে ঋণ নিচ্ছে এই ঋণের দায় তো আগামী প্রজন্মকে দিতে হবে।’

প্রস্তাবিত বাজেট বাস্তবায়নযোগ্য কিনা প্রশ্ন করা হলে সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এই বাজেট সরকার দিচ্ছে না আইএমএফ দিচ্ছে সেটাও তো দেখার বিষয়। আইএমএফ যে গাইড লাইনগুলো দিচ্ছে তারা তো সুনিশ্চিতভাবে বলেছে, কি কি করতে হবে এবং বাংলাদেশের অর্থনীতি কি কারণে আজকে নিম্ন পর্যায় এসে নেমেছে।’