ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নারায়ণগঞ্জে পুলিশের সঙ্গে বিএনপির সংঘর্ষ, আহত ১৩

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলায় পদযাত্রা কর্মসূচিতে বাধা দেওয়াকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ৪০ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়েছে পুলিশ। সেইসঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করেছেন। সংঘর্ষে তিন পুলিশ সদস্য ও বিএনপির ১০ নেতাকর্মী আহত হয়েছেন।

শনিবার (১১ ফেব্রুয়ারি) দুপুর দেড়টার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের সাতগ্রাম ইউনিয়নের পাঁচরুখী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, দুপুরে আড়াইহাজার পৌর বিএনপির উদ্যোগে শহর থেকে পদযাত্রা কর্মসূচি শুরু হয়। পদযাত্রা নিয়ে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে গিয়ে বিক্ষোভ শুরু করেন নেতাকর্মীরা। এ সময় তাদের বাধা দেয় পুলিশ। এ নিয়ে পুলিশের সঙ্গে বাগবিতণ্ডা শুরু হয়। এরই মধ্যে কর্মসূচির ব্যানার ছিনিয়ে নিতে গেলে পুলিশের সঙ্গে নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ লেগে যায়। শুরু হয় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া। এর ফাঁকে পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করেন নেতাকর্মীরা। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ফাঁকা গুলি ছুড়তে শুরু করে পুলিশ।

আড়াইহাজার পৌরসভা বিএনপির সভাপতি মোহাম্মদ উল্লাহ বলেন, ‘কেন্দ্রঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে শান্তিপূর্ণভাবে পদযাত্রা শুরু করেছিলাম আমরা। পাঁচরুখী এলাকায় গেলে আমাদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে বাধা দেয় পুলিশ। এ নিয়ে বাগবিতণ্ডা শুরু হলে নেতাকর্মীদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়তে শুরু করে পুলিশ। এতে আমাদের ১০ নেতাকর্মী আহত হন।’

আড়াইহাজার থানার ওসি আজিজুল হক হাওলাদার বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করছিলেন বিএনপি নেতাকর্মীরা। এতে যানবাহন চলাচলে বাধা সৃষ্টি হয়। তাদের সেখান থেকে সরে যেতে বললে বাগবিতণ্ডায় জড়ান। একপর্যায়ে পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ৪০ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়েছে পুলিশ। তাদের ছোড়া ইটপাটকেলে তিন পুলিশ সদস্য আহত হন। তবে বিএনপি নেতাকর্মী আহত হয়েছেন কিনা, তা আমার জানা নেই। এ ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে মামলা করবে পুলিশ।’

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।
জনপ্রিয় সংবাদ

নারায়ণগঞ্জে পুলিশের সঙ্গে বিএনপির সংঘর্ষ, আহত ১৩

আপডেট সময় ০৪:০৮:৪০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলায় পদযাত্রা কর্মসূচিতে বাধা দেওয়াকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ৪০ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়েছে পুলিশ। সেইসঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করেছেন। সংঘর্ষে তিন পুলিশ সদস্য ও বিএনপির ১০ নেতাকর্মী আহত হয়েছেন।

শনিবার (১১ ফেব্রুয়ারি) দুপুর দেড়টার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের সাতগ্রাম ইউনিয়নের পাঁচরুখী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, দুপুরে আড়াইহাজার পৌর বিএনপির উদ্যোগে শহর থেকে পদযাত্রা কর্মসূচি শুরু হয়। পদযাত্রা নিয়ে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে গিয়ে বিক্ষোভ শুরু করেন নেতাকর্মীরা। এ সময় তাদের বাধা দেয় পুলিশ। এ নিয়ে পুলিশের সঙ্গে বাগবিতণ্ডা শুরু হয়। এরই মধ্যে কর্মসূচির ব্যানার ছিনিয়ে নিতে গেলে পুলিশের সঙ্গে নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ লেগে যায়। শুরু হয় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া। এর ফাঁকে পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করেন নেতাকর্মীরা। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ফাঁকা গুলি ছুড়তে শুরু করে পুলিশ।

আড়াইহাজার পৌরসভা বিএনপির সভাপতি মোহাম্মদ উল্লাহ বলেন, ‘কেন্দ্রঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে শান্তিপূর্ণভাবে পদযাত্রা শুরু করেছিলাম আমরা। পাঁচরুখী এলাকায় গেলে আমাদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে বাধা দেয় পুলিশ। এ নিয়ে বাগবিতণ্ডা শুরু হলে নেতাকর্মীদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়তে শুরু করে পুলিশ। এতে আমাদের ১০ নেতাকর্মী আহত হন।’

আড়াইহাজার থানার ওসি আজিজুল হক হাওলাদার বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করছিলেন বিএনপি নেতাকর্মীরা। এতে যানবাহন চলাচলে বাধা সৃষ্টি হয়। তাদের সেখান থেকে সরে যেতে বললে বাগবিতণ্ডায় জড়ান। একপর্যায়ে পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ৪০ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়েছে পুলিশ। তাদের ছোড়া ইটপাটকেলে তিন পুলিশ সদস্য আহত হন। তবে বিএনপি নেতাকর্মী আহত হয়েছেন কিনা, তা আমার জানা নেই। এ ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে মামলা করবে পুলিশ।’