ঢাকা , সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ক্রিমিয়া সফরে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন অঘোষিত সফরে ক্রিমিয়ায় পৌঁছেছেন। ইউক্রেন থেকে উপদ্বীপটি দখলের নবম বার্ষিকী ঘিরে শনিবার এই সফর করছেন রুশ প্রেসিডেন্ট।

ক্রিমিয়ার সেভাস্তোপলে রুশ প্রেসিডেন্টকে স্বাগত জানান শহরটির গভর্নর মিখাইল রাজভোজায়েভ। এর কিছু পর শহরের একটি শিশু কেন্দ্র ও আর্ট স্কুল পরিদর্শন করেন পুতিন।

মেসেজিং অ্যাপ টেলিগ্রামে রাজভোজায়েভ বলেন, ‘আমাদের প্রেসিডনেট ভ্লাদিমির ভ্লাদিমিরোভিচ পুতিন জানেন কীভাবে অবাক করতে হয়। আমাদের এখানে ভ্লাদিমির ভ্লাদিমিরোভিচ ব্যক্তিগতভাবে এসেছিলেন। প্রেসিডেন্ট সবসময় সেভাস্তোপল এবং সেভাস্তোপলের জনগণের সঙ্গে আছেন।’

রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় মিডিয়া পুতিনের কোনো মন্তব্য সম্প্রচার করেনি। পুতিনের বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করার একদিন পর এই সফর করছেন রুশ প্রেসিডেন্ট।

 

 

ওয়ারেন্টের বিষয়ে পুতিন এখনও প্রকাশ্যে কোনও মন্তব্য করেননি। ক্রেমলিনের মুখপাত্র এটিকে অকার্যকর বলে অভিহিত করে বলেছেন, আইসিসির উত্থাপিত বিষয়গুলোকে আপত্তিজনক এবং অগ্রহণযোগ্য বলে মনে করেছে রাশিয়া।

ইউক্রেনে পূর্ণ মাত্রায় আগ্রাসন শুরুর আট বছর আগে ২০১৪ সালে ক্রিমিয়া দখল করে রাশিয়া। ইউক্রেন বলছে, ক্রিমিয়াসহ দখল হয়ে যাওয়া সব অঞ্চল থেকে রাশিয়াকে বিতাড়িত করতে লড়াই চালিয়ে যাবে তারা। সূত্র: আল জাজিরা

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।

ক্রিমিয়া সফরে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন

আপডেট সময় ০৪:৪৯:০৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৯ মার্চ ২০২৩

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন অঘোষিত সফরে ক্রিমিয়ায় পৌঁছেছেন। ইউক্রেন থেকে উপদ্বীপটি দখলের নবম বার্ষিকী ঘিরে শনিবার এই সফর করছেন রুশ প্রেসিডেন্ট।

ক্রিমিয়ার সেভাস্তোপলে রুশ প্রেসিডেন্টকে স্বাগত জানান শহরটির গভর্নর মিখাইল রাজভোজায়েভ। এর কিছু পর শহরের একটি শিশু কেন্দ্র ও আর্ট স্কুল পরিদর্শন করেন পুতিন।

মেসেজিং অ্যাপ টেলিগ্রামে রাজভোজায়েভ বলেন, ‘আমাদের প্রেসিডনেট ভ্লাদিমির ভ্লাদিমিরোভিচ পুতিন জানেন কীভাবে অবাক করতে হয়। আমাদের এখানে ভ্লাদিমির ভ্লাদিমিরোভিচ ব্যক্তিগতভাবে এসেছিলেন। প্রেসিডেন্ট সবসময় সেভাস্তোপল এবং সেভাস্তোপলের জনগণের সঙ্গে আছেন।’

রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় মিডিয়া পুতিনের কোনো মন্তব্য সম্প্রচার করেনি। পুতিনের বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করার একদিন পর এই সফর করছেন রুশ প্রেসিডেন্ট।

 

 

ওয়ারেন্টের বিষয়ে পুতিন এখনও প্রকাশ্যে কোনও মন্তব্য করেননি। ক্রেমলিনের মুখপাত্র এটিকে অকার্যকর বলে অভিহিত করে বলেছেন, আইসিসির উত্থাপিত বিষয়গুলোকে আপত্তিজনক এবং অগ্রহণযোগ্য বলে মনে করেছে রাশিয়া।

ইউক্রেনে পূর্ণ মাত্রায় আগ্রাসন শুরুর আট বছর আগে ২০১৪ সালে ক্রিমিয়া দখল করে রাশিয়া। ইউক্রেন বলছে, ক্রিমিয়াসহ দখল হয়ে যাওয়া সব অঞ্চল থেকে রাশিয়াকে বিতাড়িত করতে লড়াই চালিয়ে যাবে তারা। সূত্র: আল জাজিরা